রংপুরে দিনব্যাপী কর্মশালা ও ফলোআপ ওরিয়েন্টেশন অনুষ্ঠিত

VCAW orientationক্ষুধামুক্ত ও আত্মনির্ভরশীল বাংলাদেশ সৃষ্টি, ছাত্র-ছাত্রীদের নেতৃত্বের বিকাশ, তাদের সংগঠিত করার লক্ষ্যে ‘প্রত্যাশা, প্রতিশ্রুতি ও কাযর্ক্রম শীর্ষক কর্মশালা’ অত্যান্ত গুরুত্বপূর্ণ। এই কর্মশালা ও ইয়ূথ ইউনিট ফলোআপ মিটিং পরিচালনায় দক্ষ সহায়ক হিসেবে গড়ে তুলতে, গত ৯ জুলাই ২০১৩ রংপুরের তিলোত্তমা কমিউনিটি সেন্টারে দিনব্যাপী এক ‘কর্মশালা এবং ফলোআপ পরিচালনা বিষয়ক’ ওরিয়েন্টেশন অনুষ্ঠিত হয়। ওরিয়েন্টেশনে রংপুরের গঙ্গাচড়া উপজেলার ৭টি ইউনিয়ন ও রংপুর সদর হতে মোট ১৮ জন অগ্রসর ইয়ূথ সদস্য অংশগ্রহণ করে। যার মধ্যে ৫ জন মেয়ে ও ১৩ জন ছেলে।  এই ওরিয়েন্টেশনের ফলে দু’টি প্রত্যাশা অর্জিত হবে বলে সকলে আশা করছে। প্রথমতঃ অঞ্চলে যোগ্য একদল নেতৃত্ব সৃষ্টি হবে, যারা পরবর্তীতে সংগঠনকে কাঙ্ক্ষিত লক্ষ্যে পৌঁছাতে সহযোগিতা করবে। দ্বিতীয়তঃ যেহেতু সুনির্দিষ্ট বাছাই প্রক্রিয়ার মধ্য দিয়ে এ ওরিয়েন্টেশন অনুষ্ঠিত হচ্ছে তাই এর মধ্য দিয়ে ইয়ূথ সদস্যরা সংগঠনকে নিয়ে আরো বেশী সৃজনশীল ভাবনা ভাববে এবং ইউনিট আরো বেশী শক্তিশালী ও সক্রিয় হবে। ওরিয়েন্টেশন শেষে  অংশগ্রহণকারীরা প্রতিটি ইউনিয়নে ওয়ার্ডভিত্তিক পরিকল্পনা প্রণয়ন করে। ওরিয়েন্টেশনটি পরিচালনা করেন ইয়ূথ এক্টিভিস্ট ও ন্যাশনাল কো-অর্ডিনেটর মো: হাসান আলী এবং ইয়ূথ মোবিলাইজেশন ইউনিটের সমন্বয়কারী অশোক বিশ্বাস। ওরিয়েন্টেশনে উপস্থিত ছিলেন  দি হাঙ্গার প্রজেক্টের এলাকা সমন্বয়কারী রাজেশ দে রাজু।Work

কর্মশালায় অংশগ্রহণকারীরা জানতে পারে প্রত্যাশা, প্রতিশ্রুতি ও কাযর্ক্রম শীর্ষক কমৃশালার মাধ্যমে ধারণা পায় যে,  তিন ঘন্টার এই কর্মশালার মাধ্যমে কিভাবে অংশগ্রহণকারী ছাত্র-ছাত্রীদের মধ্যে গভীর সামাজিক দায়বদ্ধতা বোধ সৃষ্টি হবে। এই সামাজিক দায়বদ্ধতা থেকে মুক্তির লক্ষ্যে তারা কিভাবে একক ও সমবেত প্রত্যাশা সৃষ্টি করবে। এই প্রত্যাশা অর্জনে তারা কিভাবে নিজেরা নিজেদের কাছে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ হবে। সবশেষে এই প্রত্যাশা ও প্রতিশ্রুতি অর্জনে কিভাবে স্থানীয়ভাবে কাযর্ক্রম চিহ্নিত করবে।এই কর্মশালা স্থানীয় পর্যায়ে অংশগ্রহণকারীদের দৃষ্টিভঙ্গির রূপান্তর ঘটাতে সক্ষম হবে।  সাধারনত সারাদেশের  বিভিন্ন ইউনিটের সক্রিয় সদস্যরা এই কর্মশালা পরিচালনা করে থাকে।  যারা দক্ষতার সাথে কর্মশালা পরিচালনা করতে পারে তাদের জন্য পরবর্তীতে একাধিক সুযোগ সৃষ্টি হয়। এক কথায় ইয়ূথ এন্ডিং হাঙ্গারের সহায়ক  সৃষ্টির একটি শক্তিশালী হাতিয়ার হলো এই কর্মশালা।

 

প্রতিবিদন প্রণয়নে: ইবনে মিজান ও সজল মাজমুদ ।

Advertisements

মন্তব্য করুন

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / পরিবর্তন )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / পরিবর্তন )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / পরিবর্তন )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / পরিবর্তন )

Connecting to %s