”বাংলাদেশ তরুণ সংসদ”- এর প্রথম প্রতিকী অধিবেশন অনুষ্ঠিত

 

আমাদের দেশে ১৫ থেকে ৩৪ বছর বয়সের মধ্যে সাড়ে ৫ কোটি মানুষ রয়েছে যা মোট জনসংখ্যার প্রায় এক তৃতীয়াংশ। তাই সংখ্যা বিবেচায় এরা অতন- গুরুত্বপূর্ন। আমরা যদি এই গুরুত্বপূর্ন অংশকে তাদের নিজ-নিজ এলাকার উন্নয়নে দৈনন্দিন ছোট-বড় সামাজিক কাজে অংশগ্রহণে অনুপ্রাণিত করে সর্বোৎকৃষ্ট সম্পদে রুপান-রিত করতে পারি তাহলে তারা আমাদের জাতি গঠনে অগ্রণী ভূমিকা পালন করতে পারে। ইয়ূথ এন্ডিং হাঙ্গার-বাংলাদেশ দেশের উন্নয়ন পরিকল্পনা, উন্নয়ন বরাদ্দ, নিজেদের নেতৃত্বের বিকাশ, ডিজিটাল যোগাযোগে অভ্যস- হওয়া, নীতিমালা প্রণয়ন ও প্রয়োগ সংক্রান- বিষয়কে প্রভাবিত করার জন্য নীতি-নির্ধারণী পর্যায়ে তরুণদের কথা ও দাবি তুলে ধরা এবং রাজনীতি ও গণতন্ত্র সচেতন তরুণ নাগরিক সমাজ গড়ে তোলার লক্ষ্য নিয়ে অনেকদিন ধরে গঠনের লক্ষ্যে কাজ করে যাচ্ছে। এরই অংশ হিসেবে  ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০১২ সালে জাতীয় সংসদের শপথকক্ষে প্রথমবারের মত  ”বাংলাদেশ তরুণ সংসদ”এর প্রথম অধিবেশন অনুষ্টিত হয় ।

”বাংলাদেশে তরুণ সংসদ” অধিবেশনে অশংগ্রহণকারী তরুণ- তরুণী ও প্রশিক্ষকবৃন্দ

এই অধিবেশনে বাংলাদেশের চারটি বিভাগ থেকে ইয়ূথ এন্ডিং হাঙ্গার-বাংলাদেশ এর ১০ জন তরুণ- তরুণী ছ্‌াড়াও  ব্রাক এবং সেভ দি চিলড্রেন- ্বাংলাদেশের আরো ১০ জন তরুণ- তরুণী অশংগ্রহণ করে। 
এই প্রতিকী সংসদ অধিবেশন এর উদ্দেশ্য ছিল তরুনদের সংসদীয় আদেশপত্র,  কার্যকারীতা এবং সিদ্ধান- গ্রহণ প্রক্রিয়ার সাথে যুক্ত করা  এবং নিতীনির্ধারকদের সাথে সরাসরি  আলাপআলোচনার মাধ্যমে দেশের নিতীনির্ধারনী পর্যায়ে ভুমিকা রাখার সুযোগ করে দেয়া   এবং এর মাধ্যমে সরকার-এর সামনে তরুন সংসদের একটি চিত্র তুলে ধরা ।  বিশেষ করে আশা করা হচ্ছে কমনওয়েলথ পার্লামেন্টারী এসোসিয়েসন তরুন সংসদ ২০১৪ সালে ঢাকায় অনুষ্ঠিত হতে পারে।  এই ছায়া সংসদের অভিজ্ঞতাকে কাজে লাগিয়ে তরুন সংসদ কার্যক্রমটি এই বছরের শেষে পুরোমাত্রায় আয়োজিত হবে বলে আশা করা হচ্ছে ।

গত ২৭ ফেব্রুয়ারী তারিখে অনুষ্ঠিত প্রতিকী যুব সংসদে একটি প্লেনারী অধিবেশন এবং ” বাংলাদেশের জলবায়ু পরিবর্তন বিল-২০১২” এর উপর একটি বিতর্ক নির্ভর কমিটি মিটিং অনুষ্ঠিত হয়।  মাননীয় স্পিকার মহোদয় এর সাথে যুব সংসদের  যুব স্পিকার ও অধিবেশন পরিচালনা করেন।
এই প্রতিকী যুব সংসদ অধিবেশনটি  সংসদীয় প্রক্রিয়ায় গনতন্ত্রের উন্নয়ন প্রকল্প (আই. পি.ডি), ব্রিটিশ কাউন্সিল, ব্রাক, দি হাঙ্গার প্রজেক্ট এবং সেভ দি চিলড্রেন-  বাংলাদেশের এর সহযোগীতায় অনুষ্ঠিত হয়।

Advertisements

About John Coonrod

Executive Vice President, The Hunger Project
This entry was posted in অন্যান্য, কার্যক্রম. Bookmark the permalink.